পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান মুজফফরাবাদে একটি বড় জলসা বা সমাবেশ আয়োজনের ঘোষণা দিয়েছেন। আগামী শুক্রবার এটি অনুষ্ঠিত হবে বলে নিজের টুইটার পোস্টে জানিয়েছেন।

বুধবার ইমরান খান বলেন, অধিকৃত কাশ্মীরে ভারতীয় দখলদার বাহিনীর অব্যাহত অবরোধ নিয়ে বিশ্ববাসীকে একটি বার্তা দিতেই এই জলসার আয়োজন। এছাড়াও কাশ্মীরিদের দেখাতে চান যে পাকিস্তান দৃঢ়ভাবে তাদের সঙ্গে রয়েছে।

গত ৫ আগস্ট কাশ্মীরের স্বায়ত্তশাসনের বিশেষ অধিকার কেড়ে নেয়ার ঘোষণা দেয় নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন কট্টর হিন্দুত্ববাদী ভারতীয় সরকার। এরপর মুসলমান অধ্যুষিত রাজ্যটিতে কঠোর অচলাবস্থা আরোপ করে দেয়া হয়েছে।

কাশ্মীরের পরিস্থিতি নিয়ে এর আগেও বেশ কয়েকবার উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন তিনি।

এর আগে কাশ্মীরিদের সঙ্গে সংহতি প্রকাশ করে প্রতি সপ্তাহে একটি করে বিক্ষোভের ঘোষণা দেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী। যেটা গত ৩০ আগস্ট থেকে শুরু হয়েছে।

এমন এক সময় ইমরান খান এ ঘোষণা দিয়েছেন, যার একদিন আগে অধিকৃত কাশ্মীরের মানবাধিকার পরিস্থিতি নিয়ে জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলে অর্ধশত দেশের পক্ষ থেকে যৌথ বিবৃতি দিয়েছে পাকিস্তান।

বিবৃতিতে বলা হয়, কাশ্মীরের মানবাধিকার ও মানবিক পরিস্থিতির চরম অবনতির কারণে সেখানে মানবাধিকার কাউন্সিল ও মানবাধিকার কলাকৌশলের জরুরি মনোযোগ আকর্ষণ প্রয়োজন।

জেনেভায় জাতিসংঘের মানবাধিকার কাউন্সিলে মঙ্গলবার পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহ মাহমুদ কুরাইশি বলেন, ভাতরনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের পরিস্থিতি নিয়ে সেখানে একটি আন্তর্জাতিক তদন্ত শুরু করা দরকার। মুসলমান অধ্যুষিত রাজ্যটিতে গণহত্যার ঝুঁকি রয়েছে বলেও তিনি সতর্ক করে দেন।



Contact
reader@banginews.com

Bangi News app আপনাকে দিবে এক অভাবনীয় অভিজ্ঞতা যা আপনি কাগজের সংবাদপত্রে পাবেন না। আপনি শুধু খবর পড়বেন তাই নয়, আপনি পঞ্চ ইন্দ্রিয় দিয়ে উপভোগও করবেন। বিশ্বাস না হলে আজই ডাউনলোড করুন। এটি সম্পূর্ণ ফ্রি।

Follow @banginews