এ ঘটনায় রোববার (১৫ এপ্রিল) দিবাগত রাতে কোতোয়ালি মডেল থানায় চাঁদাবাজির অভিযোগে স্থানীয় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের ৩ নেতাকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়।

এ মামলার আসামিরা হলেন- সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রয়েল হোসেন, মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা মোক্তার হোসেন ও চরনিলক্ষিয়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি আনোয়ার হোসেন।

সোমবার (১৬ এপ্রিল) দুপুরে এ মামলার বাদী আলী আকতার রিপন বাংলানিউজকে বলেন, অভিযুক্তরা দীর্ঘদিন ধরেই মোবাইল ফোনে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে আসছিল। কিন্তু টাকা দিতে অস্বীকার করায় তারা নানাভাবে হুমকি দিচ্ছিলো।

‘এরমধ্যে গত শুক্রবার (১৩ এপ্রিল) রাত পৌনে ৮টার দিকে এক ঘণ্টার মধ্যে ১০ হাজার টাকা নিয়ে দেখা করতে বলে মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা মোক্তার হোসেন। কিন্তু নির্ধারিত সময়ে চাঁদা না দেওয়ায় ওই দিনই রাত সাড়ে ১০টার দিকে সিএনজি পাম্পে এসে রুমে ঢুকে দরজা বন্ধ করে সিসি ক্যামেরার মুখ ঘুরিয়ে দেয়। এরপর তারা চাঁদা দাবিতে বাদী আলী আকতারকে মারধর করে রক্তাক্ত করে।’

সিএনজি কর্মচারীরা জানায়, রিপনের চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন দৌঁড়ে এলে পাম্প বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে আসামিরা চলে যায়। পরে আহত রিপনকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

সিএনজি পাম্পটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক নূরুল ইসলামের বাড়ি ঝিনাইদহ জেলার শৈলকূপায় এবং পরিচালক লুৎফর রহমানের বাড়ি রাজবাড়ী জেলায়। পরিচালক বা ব্যবস্থাপনা পরিচালক কেউই ময়মনসিংহে থাকেন না বলে জানান ব্যবস্থাপক রিপন।

এ বিষয়ে কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহমুদুল ইসলাম বাংলানিউজকে জানান, চাঁদাবাজির অভিযোগে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৪৪ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৬, ২০১৮

এমএএএম/জিপি



Contact
reader@banginews.com

Bangi News app আপনাকে দিবে এক অভাবনীয় অভিজ্ঞতা যা আপনি কাগজের সংবাদপত্রে পাবেন না। আপনি শুধু খবর পড়বেন তাই নয়, আপনি পঞ্চ ইন্দ্রিয় দিয়ে উপভোগও করবেন। বিশ্বাস না হলে আজই ডাউনলোড করুন। এটি সম্পূর্ণ ফ্রি।

Follow @banginews